রাদিয়া নামের অর্থ কি?


Loading...


বিশেষ দ্রষ্টব্যঃ আপনার নবজাতকের নাম রাখার জন্য আপনি কোনো আলেম এর সাথে যোগাযোগ করুন। হতে পারে তিনি মসজিদের ইমাম বা মাদ্রাসার শিক্ষক।

আপনি যদি রাদিয়া নামের অর্থ কি বা রাদিয়া নামের ইসলামিক অর্থ কি বা রাদিয়া নামের আরবি অর্থ কি? জানতে চান তাহলে এই পোস্টটি আপনার জন্য।

রাদিয়া নামের অর্থ কি?

রাদিয়া মাত্র ৩ শব্দের ছোট ও সুন্দর একটি নাম। এই রাদিয়া শব্দটি আরবি ভাষার। এটি মাযি মত্বলক মা’রুফ এর সিগাহ, মাসদার বা ক্রিয়ামূল হল রিদওয়ান । অর্থ: (সে) সন্তুষ্ট হল। রাদিয়া শব্দের একটা উদাহরন হলঃ রাদ্বিয়াল্লাহ আনহুম। আমরা যখন কোনো সাহাবা এর নাম শুনি তখন আমরা বলি রাদ্বিয়াল্লাহ আনহুম। এর অর্থ হল তার প্রতি আল্লাহ সন্তুষ্ট।

রাদিয়া নামের আরবি অর্থ কি

রাদিয়া শব্দটির আরবী দুটি রূপ হতে পারে। ১.راضية ২. رادية। উভয় শব্দটিই স্ত্রীবাচক কর্তাবিশেষ্য শব্দ। প্রথম শব্দটির অর্থ সন্তুষ্ট, সম্মত, রাজি। আর দ্বিতীয় শব্দটির অর্থ হল, নষ্ট, পতিত, ধ্বংসশীল।

রাদিয়া নামটি সাধারণত মেয়েদের রাখা হয়। ছেলেদের জন্য এই নাম প্রযোজ্য না।

নিঃসন্দেহে রাদিয়া নামের প্রথম রুপটি ভাল ও দ্বিতীয় রূপটি খারাপ। এখন দেখি এইনাম আপনি আপনার মেয়ের জন্য রাখবেন নাকি রাখবেন না।?

আপনি উপরের রাদিয়া শব্দের ২টি আরবী বানান খেয়াল করলে দেখবেন যে প্রথমটির বানানে আছে দোয়াত(ض) আর দ্বিতীয়টায় আছে দাল(د)। এখন আসেন আসল কথায়। আপনি দেখলেন রাদিয়া নামের অর্থ তো ভালই। তাই এই নামটা রাখাই যায়। তো আপনার মেয়ের নাম রাখলেন রাদিয়া।কিন্তু আপনি রাখছেন আসলে রাদ্বিয়া।কিন্তু মানুষ আপনার মেয়ের নাম বিকৃত করে বলবে রাদিয়া যার অর্থ নষ্ট। সুতরাং আপনার মেয়ের নাম রাখার সময় এসব বিষয় খেয়াল করে রাখবেন।

 

ট্যাগসঃ

রাদিয়া নামের অর্থ কি
রাদিয়া নামের অর্থ
রাদিয়া নামের অর্থ কি
রাদিয়ান নামের অর্থ কি
রিদিয়া নামের অর্থ কি
রাদিয়া
রাদিয়াহ নামের অর্থ কি

 



Leave a Comment

Your email address will not be published.